ক্যান্সার আক্রান্ত রবিন বাঁচতে চায়

0
41

চারঘাট প্রতিনিধি:সবেমাত্র কৈশোরে পা দিয়েছে। সহপাঠীদের সাথে হুই-হুল্লোড় করে সময় কাটানোর কথা। রঙিন স্বপ্ন নিয়ে পড়ার টেবিলে মন দেওয়ার কথা। কিন্তু এ বয়সে শরীরে ধরা পড়েছে মরণব্যাধি ক্যান্সার। নিমিষেই সব রঙিন স্বপ্ন যেন ফিকে হয়ে গেছে। স্বামীহারা মায়ের মাথায় যেন আকাশ ভেঙে পড়েছে। ছেলেকে বাঁচাতে মায়ের আহাজারি যেন আকাশ-পাতাল এক করে দিচ্ছে।
বলা হচ্ছে রবিন ইসলামের (১৪) কথা। রাজশাহীর চারঘাট পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর শিক্ষার্থী সে। পড়াশোনায় খুবই মেধাবী। তাঁর বাবা মৃত রবিউল ইসলাম উপজেলার মিয়ারপুর গ্রামের বাসিন্দা। যিনি পেশায় একজন শ্রমিক ছিলেন। প্রায় ১০ বছর আগে সড়ক দূর্ঘটনায় মারা গেছেন তিনি। দুই ভাইয়ের মধ্যে রবিন বড়। রবিনের মা তাহেরা বেগমের সামান্য কিছু আয়ে চলে তিন সদস্যের সংসার।
গত আগষ্ট মাসে রবিনের শরীরে ধরা পড়েছে মরণব্যাধি ‘বোন ক্যান্সার’। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন চিকিৎসা করতে লাগবে প্রায় ৬ লাখ টাকা। বর্তমানে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ৩১ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন আছে রবিন। দরিদ্র মা ধার-দেনা করে চিকিৎসা চালিয়ে এসেছেন। আর পারছেন না। ভিটেমাটি ছাড়া সহায় সম্বল বলতে কিছুই নেই তাদের। তাই ছেলের চিকিৎসা করাতে গিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়ছেন তিনি।


খোঁজ নিতে হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, হাসপাতালের বেডে নিস্তেজ পড়ে আছে রবিন। ক্রমশ ফুলে উঠেছে তাঁর ডান পা। ক্ষীণ হয়ে আসছে চক্ষুযুগল। পাশেই বসে আহাজারি করছেন অসহায় মা তাহেরা বেগম।
রবিনের চাচা মোস্তফা আলী জানান, গত জুলাই মাসে রবিনের হাঁটু ফুলাসহ শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়। পরে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার চিকিৎসকরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে জানিয়েছেন ‘বোন ক্যান্সার’ হয়েছে রবিনের। কিছুদিন চিকিৎসার পর তাঁকে ঢ়াকায় নিয়ে গিয়ে পরীক্ষা করে রিপোর্ট দেখে বোন ক্যান্সার নিশ্চিত হয়ে কেমোথেরাপি চালিয়ে যাওয়ার কথা বলেন সেখানকার চিকিৎসক। এতে প্রায় ৬ লাখ টাকা খরচ হবে বলে তারা জানান।
রবিনের অসহায় মা তাহেরা বেগম বলেন, আমি একজন দরিদ্র মা। ইতোমধ্যে ছেলের চিকিৎসায় ধার-দেনা করে অনেকগুলো টাকা খরচ করে ফেলেছি। আমি আর পারছি না। এক একটি কেমো ইনজেকশনের দাম প্রায় ১৫ হাজার টাকা। ছেলের চিকিৎসার জন্য এগিয়ে আসতে সমাজের বিত্তবানসহ সরকারের কাছে সাহায্যের আবেদন করেছেন তিনি।
ক্যান্সারে আক্রান্ত রবিনের চিকিৎসার্থে এগিয়ে আসতে পারেন আপনিও। আপনার একটু সাহায্য পেলে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে উঠতে পারে সে। সাহায্য পাঠাতে যোগাযোগ করতে পারেন মুঠোফোনে। চারঘাট হেল্পলাইন- ০১৭১৮-০১৫১৩৬, নাইস ইসলাম- ০১৭৮০-৬৬৯১৪৪।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে