বাঘার আড়ানীতে শিশু হাসপাতাল, দুইটি ইউপি ভবন ও আড়ানী পৌরভবনের জন্য জমিদান করলেন : পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

0
150

প্রিন্স (বিশেষ প্রতিনিধি):
রাজশাহীর বাঘায় দু’টি ইউনিয়ন ভবন ,আড়ানী মা ও শিশু হাসপাতাল, আড়ানী পৌর ভবন নির্মানের জন্য জমিদান করলেন স্থানীয় সাংসদ ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আলহাজ শাহরিয়ার আলম। তাঁর এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন বাঘার সর্বস্তরের মানুষ।
সূত্রে জানা গেছে, রাজশাহীর চারঘাট-বাঘা থেকে নির্বাচিত সাংসদ ও বর্তমান সরকারের মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব শাহরিয়ার আলমের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় তাঁর নির্বাচনী এলাকায় নানা মুখি উন্নয়ন অব্যাহত রয়েছে। এলাকার মানুষের কথা চিন্তা করে তিনি উপজেলার আড়ানীতে মা ও শিশু হাসপাতাল জন্য দুই বিঘা জমি ৩৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে স্থাপনের জন্য জমিদান করেন।
গড়গড়ি ইউপি ভবন জন্য ২২ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ও চকরাজাপুর ইউনিয়ন কমপ্লেক্্র নির্মানের জমি কিনে ৫ লক্ষ টাকা নিজ অর্থায়নে জমিদান করেন। এতে করে অত্র দুই ইউনিয়নে সর্বস্তরের জনগনের কাছে প্রশংশিত হন শাহ্রিয়ার। সর্বশেষ ১৫ জুন ২০২০ ইং তারিখ আড়ানী পৌর সভার স্থায়ী ভবন নির্মানের জন্য তিনি ২০ লক্ষ টাকা ব্যায়ে ১ বিঘা ৮ কাঠা জমি কিনে পৌর সভার নামে একটি দান দলিল সম্পাদন করেন। এতে করে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানানো সহ আবেগ আপ্লত হন আড়ানী পৌরবাসী।
স্থানীয় লোকজন জানান, শাহরিয়ার আলম বর্তমান সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার স্বপ্ন পুরণে উপজেলার প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভবন নির্মান সহ-পৌঁছে দিয়েছেন একটি করে কম্পিউটার এবং আইসিটি ল্যাব। ঘোষনা দিয়েছেন কেউ যদি তাঁর সন্তানকে পড়ালেখা করাতে ব্যর্থ হন তাহলে সেই শিক্ষার্থীর দায়িত্ব নেবেন তিনি। একই সাথে মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য ব্যয় করছেন জাতীয় সাংসদ থেকে প্রাপ্ত সম্মানী ভাতার অর্থ।
অপর দিকে জনকল্যানমুখি স্বপ্ন বাস্তবায়নে তাঁর রয়েছে সর্বাক্তক প্রচেষ্টা। তিনি বাঘায় ৩০ শয্যার হাসপাতালকে ৫০ শয্যায় রুপান্তরিত করা সহ ফায়ার সাভিং স্ট্রেশান স্থাপন এবং শকভাগ বিদ্যুতায়নের জন্য পৃথক দু’টি বৈদ্যুতিক উপকেন্দ্র চালু করেছেন। এর ফলে ৫০ টি গ্রামে ৬০ কিলোমিটার বিদ্যুতায়ন করা হয়েছে। এই বিদ্যুতায়নের আওতায় আলোর মুখ দেখেছেন ৯ হাজার ৬ শ পরিবার।
আড়ানী পৌর মেয়র মুক্তার আলী জানান, চারঘাট-বাঘায় বিগত সময়ে অনেকেই এমপি.মন্ত্রী নির্বাচিত হয়েছেন। তবে ব্যাক্তিগত অর্থ দিয়ে কোন প্রতিষ্ঠান নির্মানের জন্য কেউ জমি দান করেননি। তিন-তিনবার নির্বাচিত মাটি ও মানুষের নেতা আলহাজ্ব শাহরিয়ার আলম আড়ানী পৌর ভবন নির্মানের জন্য ১ বিঘা ৮ কাঠা জমি ক্রয় পুর্বক পৌরসভার নামে দান দলিল সম্পদান করেছেন। এ জন্য শুধু আমি নয়, পুরো আড়ানী পৌরবাসী তাঁর কাছে চির কৃতঙ্গ থাকবেন।
সার্বিক বিষয়ে মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ও স্থানীয় সাংসদ আলহাজ্ব শাহারিয়ার আলম বলেন, বাঘা চারঘাটের তৃনমূল লোকজনের চাহিদা বিবেচনা করে তিনি উন্নয়ন কাজে হাত দিয়েছেন। বিগত ও বর্তমান সরকারের দুই বছরে কোন-কোন ক্ষেত্রে নিজ অর্থায়নে সহায়তা-সহ মাননীয় প্রধান মন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ঐকান্তিক সহযোগীতায় বাঘা-চারঘাটের ব্যাপক উন্নয়ন করা হয়েছে। তিনি বলেন, আগামি দিন গুলোতেও এই উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে