রাজশাহীর বাঘায় গৃহবধুর বাসায় গিয়ে শ্রীঘরে যুবক, শ্রীলতাহানির অভিযোগে মামলা

0
282

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি
রাজশাহীর বাঘায় শ্রীলতাহানির অভিযোগে সোহান ইসলাম (২৬) সহ তার বন্ধু মিঠু (২১)’র বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার (০৬-১১-১৯) রাতে উপজেলার পাকুড়িয়া গ্রামের সুজিত কুমার সরকারের স্ত্রী গৃহবধু তনুশ্রী বাদি হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত সোহান ইসলাম উপজেলার হিজলপল্লী গ্রামের কামরুল ইসলামের ছেলে ও মিঠু একই উপজেলার পাকুড়িয়া গ্রামের রহমত আলীর ছেলে।
প্রত্যক্ষদর্শী রবিউল ইসলাম জানান, বুধবার সন্ধ্যার পর চুপিসারে বাদি তনুশ্রীর বাসায় দেখা করতে যায় যুবক সোহান ইসলাম। বিষয়টি টের পেয়ে তাকে ধাওয়া করে স্থানীয় কয়েকজন যুবক। এসময় পালিয়ে আত্বরক্ষার চেষ্টা করে সোহান ইসলাম। এক পর্যায়ে নিজ বাড়িতে সোহানকে হেফাজতে নেয় স্থানীয় নাজমুল ইসলাম। পুলিশ জানায় সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে থানায় নেয়া হয়। পরে মামলাটি দায়ের করেন তনুশ্রী প্রামানিক।
মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, দেড় বছর আগে সোহানের সাথে তনুশ্রী প্রামানিকের পরিচয় হয়। এর পর থেকে তনুশ্রীকে বিভিন্ন সময়ে উত্ত্যক্ত করতো এবং কু-প্রস্তাব দিতো। বিষয়টি স্বামীকে জানানোর পর, এধরনের আচরন থেকে বিরত থাকার জন্য সোহানের বাবাকে অবগত করেন। এমনকি মোবাইলের ৩-৪টা সিমও পরিবর্তন করেন। পরে মিঠুর সহায়তায় সেই নম্বর সংগ্রহ করে একই ধরনের আচরন করতো। ঘটনার দিন বুধবার রাত সাড়ে ৬টায় দ্বিতীয় তলার শয়নকক্ষে প্রবেশ করে ওড়না ধরে টান দেয়। চিৎকার দিলে তার স্বামীর দুই ভাইয়ের স্ত্রী-জুলেখা ও তনুশ্রী এগিযে যায়। এসময় দোতলার ছাদ থেকে নীচ তলায় লাফ দেয় সোহান। পরে স্থানীয়রা তাকে আটক করে পুলিশকে খবর দিলে তাকে হেফাজতে নেয় পুলিশ ।
এদিকে সোহান ইসলাম জানান, আমার সাথে বিভিন্ন সময়ে মুঠোফোনে কথা বলতো তনুশ্রী। পুর্ব পরিচয়ের সুত্র ধরে তনুশ্রী‘র ডাকে দেখা করতে যায় তার বাড়ীতে। বের হয়ে আসার সময স্থানীয় যুবকরা চোর চোর বলে ধাওয়া করে। স্থানীয় নাজমুল জানান,এসময় তাকে উদ্ধার করে তার বাসায় নেন। অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আতিকুর রেজা সরকার জানান,সোহান ইসলামসহ সহায়তার অভিযোগ এনে মিঠুকেও আসামী করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here